ঢাকা বৃহস্পতিবার, ১৮ অক্টোবর, ২০১৮, ৩ কার্তিক ১৪২৫
Sharp AC

বিকেলে মিলবে রায়ের কপি, আপিল ফাইল কাল


গো নিউজ২৪ | নিজস্ব প্রতিবেদক: প্রকাশিত: ফেব্রুয়ারি ১৪, ২০১৮, ০১:৫৬ পিএম আপডেট: ফেব্রুয়ারি ১৪, ২০১৮, ০৭:৫৭ এএম
বিকেলে মিলবে রায়ের কপি, আপিল ফাইল কাল
Sharp AC

ঢাকা : জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় সাজাপ্রাপ্ত বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার রায়ের কপি বিকেলে পাওয়া যাবে বলে জানা গেছে।

মঙ্গলবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে খালেদা জিয়ার আইনজীবী সানাউল্লাহ মিয়া জানিয়েছিলেন, বুধবার দুপুরের পর রায়ের কপি পাওয়া যাবে। এটা ঢাকা বিশেষ জজ-৫ সরবরাহ করবে। 

সে অনুযায়ী আজ রায়ের কপি পেলে পরদিন বৃহস্পতিবার আপিল ফাইল করা হবে।

এর আগে মঙ্গলবার কয়েকটি ওকালতনামা জেল সুপারের মাধ্যমে খালেদা জিয়ার কাছে পাঠান আইনজীবীরা।

এরও আগে সোমবার ৬৩২ পৃষ্ঠার রায়ের কপি পাওয়ার জন্য তিন হাজার পৃষ্ঠার কার্টিজ পেপার আদালতে জমা দিয়েছেন খালেদার আইনজীবীরা। এই কার্টিজ পেপারে রায়ের সার্টিফায়েড কপি লেখা হবে।

উল্লেখ্য,  জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার ৫বছরের কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত।

এ মামলায় বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের ১০ বছর কারাদণ্ড প্রদান করা হয়েছে।

গত বৃহস্পতিবার (৮ ফেব্রুয়ারি) বেলা আড়াইটার দিকে এ রায় ঘোষণা করেন মামলার বিচারক ঢাকার পঞ্চম বিশেষ জজ মো. আখতারুজ্জামান।

মামলার অন্যান্য ৫ আসামীকেও ১০ বছরের কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। 

সাজা প্রাপ্ত অন্য আসামীরা হলেন- সাবেক সাংসদ ও ব্যবসায়ী কাজী সালিমুল হক কামাল, সাবেক মুখ্যসচিব কামাল উদ্দিন সিদ্দিকী, ব্যবসায়ী শরফুদ্দিন আহমেদ ও জিয়াউর রহমানের বোনের ছেলে মমিনুর রহমান। মামলায় শুরু থেকে পলাতক আছেন তারেক রহমান, কামাল উদ্দিন সিদ্দিকী ও মমিনুর রহমান।

রায়ে সাজাপ্রাপ্ত প্রত্যেকের ২কোটি ১০লক্ষ ৭১ হাজার টাকা সমপরিমান জরিমানাও ধার্য করা হয়েছে।পাঁচ বছরের 

কারাদণ্ডের রায়ের অনুলিপি আনতে আজ বিশেষ জজ আদালত-৫ এ যাচ্ছেন বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার আইনজীবীরা।

গত বৃহস্পতিবার এই রায়ের পর থেকে আইনজীবীরা এর বিরুদ্ধে উচ্চ আদালতে আপিল করার জন্য প্রস্তুতি নিলেও রায়ের অনুলিপি না পেয়ে সে আবেদন করতে পারছেন না। আপিল আবেদনের পাশাপাশি সাবেক প্রধানমন্ত্রীর জামিন আবেদনও করা হবে।

বৃহস্পতিবার রায়ের দিনই অনুলিপি যোগাড়ের চেষ্টা করেছিলেন আইনজীবীরা। কিন্তু তারা পাননি। এ কারণে রবিবার আপিল করার কথা থাকলেও তা করা যায়নি।

সোমবার অনুলিপির জন্য তিন হাজার পৃষ্ঠা কোর্টফোলিও স্ট্যাম্প আদালতে দাখিল করেন খালেদা জিয়ার আইনজীবীরা।

এই রায়টি ৬৩২ পৃষ্ঠার। রায়ের দিন আইনমন্ত্রী আনিসুল হক সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে বলেছিলেন, এক বড় রায়ের অনুলিপি এক দুই এক দিনে পাওয়া কঠিন।

বিএনপি চেয়ারপারসনের আইনজীবী সানাউল্লাহ মিয়া ঢাকাটাইমসকে জানান, মঙ্গলবার আদালত থেকে তাদের বলা হয়েছে যে, বুধবার তাদের রায়ের অনুলিপি দেওয়া হবে। তাই আজ দুপুরে তারা অনুলিপি আনতে আদালতে যাবেন।

সানাউল্লাহ মিয়া বলেন, ‘আমরা আশা করছি আজকেই অনুলিপি পাব এবং বৃহস্পতিবার হাইকোর্টে বেগম খালেদা জিয়ার পক্ষে আপিল দাখিল করব।’

রায়ের পাশাপাশি খালেদা জিয়ার পক্ষে মামলাটির এজাহার, অভিযোগপত্র, সাক্ষীদের জেরা ও জবানবন্দিসহ অনুসঙ্গিক আদেশ সমূহের অনুলিপিও চাওয়া হয়েছে।

রায় ছাড়া অন্য সব অনুলিপি তৈরির কাজ মঙ্গলবার শেষ হয়েছে। এখন শুরু রায়ের অনুলিপি তৈরির কাজ বাকি আছে। যা বিচারকের কাছ থেকে পাওয়ার পর যদি কোন সংশোধন থাকে তবে তা সংশোধন করে প্রিন্ট দেওয়া শুরু হবে।

জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতির মামলায় খালেদা জিয়ার বড় ছেলে দলটির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানসহ পাঁচ আসামি ১০ বছর করে কারাদণ্ড হয়েছে। এ ছাড়া তাদেরকে ২ কোটি ১০ লাখ ৭১ হাজার ৬৪৩ টাকা ৮০ পয়সা করে জরিমানা করা হয়।

দণ্ডিত অপর চার আসামি হলেন, সাবেক সংসদ সদস্য কাজী সালিমুল হক কামাল, ব্যবসায়ী শরফুদ্দিন আহমেদ, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের সাবেক সচিব কামাল উদ্দিন সিদ্দিকী ও প্রয়াত রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের ভাগ্নে মমিনুর রহমান।

দণ্ডিতদের মধ্যে তারেক রহমান, কামাল সিদ্দিকী ও মমিনুর রহমান পলাতক রয়েছেন।

 

গো নিউজ২৪/আই

জাতীয় বিভাগের আরো খবর
৫৪ ঘণ্টা পর অনশন ভাঙলেন আখতার

৫৪ ঘণ্টা পর অনশন ভাঙলেন আখতার

আমি নিজেও একজন মুসলিম : চীনা রাষ্ট্রদূত

আমি নিজেও একজন মুসলিম : চীনা রাষ্ট্রদূত

শ্রদ্ধা জানাতে শহীদ মিনারে নেয়া হবে আইয়ুব বাচ্চুর মরদেহ

শ্রদ্ধা জানাতে শহীদ মিনারে নেয়া হবে আইয়ুব বাচ্চুর মরদেহ

বাংলাদেশ সফরে আসতে চান সৌদি যুবরাজ

বাংলাদেশ সফরে আসতে চান সৌদি যুবরাজ

মইনুল হোসেনকে প্রকাশ্যে ক্ষমা চাইতে বললেন নারী সাংবাদিকরা

মইনুল হোসেনকে প্রকাশ্যে ক্ষমা চাইতে বললেন নারী সাংবাদিকরা

হাতিরঝিলে প্লাস্টিক কুড়ালেন ইইউ প্রতিনিধিরা

হাতিরঝিলে প্লাস্টিক কুড়ালেন ইইউ প্রতিনিধিরা

Best Electronics AC mela