ঢাকা বৃহস্পতিবার, ০৪ জুন, ২০২০, ২১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

পাঁচ লাখ টাকার রেমিট্যান্সে শর্ত ছাড়াই প্রণোদনা


গো নিউজ২৪ | নিজস্ব প্রতিনিধি প্রকাশিত: মে ১২, ২০২০, ০৮:০৫ পিএম
পাঁচ লাখ টাকার রেমিট্যান্সে শর্ত ছাড়াই প্রণোদনা

পাঁচ হাজার মার্কিন ডলার অথবা পাঁচ লাখ টাকার সমপরিমাণ রেমিট্যান্সে দুই শতাংশ হারে প্রণোদনা পাওয়ার ক্ষেত্রে কোনও ধরনের কাগজপত্র লাগবে না। সেই সঙ্গে পাঁচ লাখ টাকার ওপরে রেমিট্যান্সের প্রয়োজনীয় কাগজপত্র দাখিলের বাধ্যবাধকতা শিথিল করা হয়েছে।

বাংলাদেশ ব্যাংকের বৈদেশিক মুদ্রা নীতি বিভাগ মঙ্গলবার (১২ মে) এ সংক্রান্ত এক নির্দেশনা জরি করেছে।

প্রসঙ্গত, আগে ১৫০০ মার্কিন ডলার বা  দেড় লাখ টাকার বৈদেশিক মুদ্রা পাঠালে বিনা প্রশ্নে প্রণোদনার কথা বলা হয়েছিল। এছাড়া, প্রণোদনা পেতে রেমিট্যান্সের প্রয়োজনীয় কাগজপত্র ১৫ দিনের মধ্যে দাখিলের বাধ্যবাধকতা ছিল।

ব্যাংকগুলোর এমডিদের কাছে পাঠনো নির্দেশনায় বলা হয়েছে, এখন থেকে পাঠানো রেমিট্যান্সের ওপর প্রতিবারে সর্বোচ্চ  পাঁচ হাজার ডলার অথবা পাঁচ লাখ টাকা পর্যন্ত অর্থ প্রেরণের জন্য কাগজপত্রাদি ব্যতিরেকে প্রণোদনা সুবিধা প্রযোজ্য হবে।

বাংলাদেশ ব্যাংক আরও  বলেছে, নগদ সহায়তার জন্য পাঁচ হাজার ডলার অথবা পাঁচ লাখ টাকার অধিক রেমিট্যান্সের ক্ষেত্রে প্রাপক কর্তৃক ১৫ কার্যদিবসের মধ্যে দাখিল করার বাধ্যবাধকতা শিথিল করে, কাগজপত্রাদি দাখিলের সময়সীমা দুই মাস পর্যন্ত বর্ধিত করা হলো। এ সুবিধা আগামী ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত বহাল থাকবে।

তবে, পাঁচ লাখ টাকার বেশি রেমিট্যান্সে নগদ প্রণোদনা পাওয়ার জন্য রেমিট্যান্স প্রদানকারী ব্যাংকের শাখায় পাসপোর্টের কপি এবং বিদেশি নিয়োগদাতার দেওয়া নিয়োগপত্রের কপি জমা দিতে হয়। রেমিট্যান্স প্রেরণকারী ব্যক্তি ব্যবসায় নিয়োজিত হলে ব্যবসার লাইসেন্স দিতে হবে।

গোনিউজ২৪/এন

অর্থনীতি বিভাগের আরো খবর
চলতি মাস থেকেই শ্রমিক ছাঁটাই শুরু

চলতি মাস থেকেই শ্রমিক ছাঁটাই শুরু

ডলার বিক্রি হচ্ছে ৯০ টাকায়

ডলার বিক্রি হচ্ছে ৯০ টাকায়

এনজিওর কিস্তি আদায় জুনেও বন্ধ

এনজিওর কিস্তি আদায় জুনেও বন্ধ

ঋণ নেওয়া ব্যবসায়ীদের জন্য ২ হাজার কোটি টাকা প্রণোদনা

ঋণ নেওয়া ব্যবসায়ীদের জন্য ২ হাজার কোটি টাকা প্রণোদনা

সব রকমের মুরগির দাম নিম্নমুখী, কমেছে সবজির দামও

সব রকমের মুরগির দাম নিম্নমুখী, কমেছে সবজির দামও

৩১ মে থেকে আগের নিয়মেই চলবে ব্যাংকিং কার্যক্রম

৩১ মে থেকে আগের নিয়মেই চলবে ব্যাংকিং কার্যক্রম