২৬ অগ্রাহায়ণ ১৪২৩, শনিবার ১০ ডিসেম্বর ২০১৬ , ২:৫১ অপরাহ্ণ

এড়িয়ে যাবেন না নখের অসুস্থতা


গো নিউজ২৪ | স্বাস্থ্য ডেস্ক আপডেট: ০৭ নভেম্বর ২০১৫ শনিবার
এড়িয়ে যাবেন না নখের অসুস্থতা

ঢাকা: নিজের হাত-পায়ের নখগুলোর দিকে একবার চোখ বুলিয়ে নিন। কেমন দেখতে? নখগুলো শক্ত আর স‍ুস্থ মনে হচ্ছে কি? নাকি ঢালের মতো উঁচু, গর্ত বা বিবর্ণ দেখাচ্ছে? হয়তো ভাবছেন, যত্নের অভাবেই নখগুলোর এই হাল।

আপনি কি জানেন নখের এমন অস্বাভাবিকতার অর্থ অ্যানিমিয়া ও থাইরয়েড ইনফেকশনের মতো অসুখ বা পুষ্টির ঘাটতি?

সুস্থ নখ কখনও ভাঙে না। সুস্থ নখে বিবর্ণতা বা দাগ থাকবে না। নখের অসুখ বা কোনো অসুখের প্রভাবে নখের অস্বাভাবিকতা আমরা সাধারণত টের পাই না। সতর্ক হতে জেনে নিন কিছু তথ্য।

ভঙ্গুর নখ
কারণ: আর্দ্রতা ও ভিটামিন বি কমপ্লেক্সের অন্তর্গত বায়োটিনের অভাব।

সমাধান: ডিমের কুসুম, স্যালমন, অ্যাভোকাডো ও অন্য ফল, কলিজা ও ইস্ট ব্যবহৃত খাবার খান।

ধনুকের মতো বাঁকা হয়ে যাওয়া নরম নখ

কারণ: লোহার অভাব।

সমাধান: লোহা সমৃদ্ধ খাবার যেমন- সূর্যমুখীর বীজ, বাদাম, গরু ও খাসির মাংস, মটরশুটি, শস্যদানা, গাঢ় সবুজ পাতাজাতীয় সবজি ও ডার্ক চকলেট খান।

নখে লম্বালম্বি সারিবদ্ধ দাগ

কারণ: ভিটামিন ও খনিজের অভাব।

সমাধান: সপ্তাহে একবার নখে আমন্ড অয়েল নেইল বাফার দিয়ে ম্যাসাজ করুন। এতে নখের ওপরের পাতলা স্তর সরে যাবে।

আড়াআড়ি সারিবদ্ধ দাগ বা গর্ত

অনেকের নখের মাঝ বরাবর আড়াআড়ি দাগ দেখা যায় ও দাগের দু’পাশে নখ সামান্য উচুঁ হয়ে যায়। আবার অনেকের ক্ষেত্রে সারিবদ্ধ অনেকগুলো আড়াআড়ি দাগও চোখে পড়ে।
 
কারণ: জ্বরের প্রকোপ, মানসিক আঘাত ও পুষ্টির অভাব ইত্যাদির কারণে নখের স্বাভাবিক বৃদ্ধি ব্যাহত হয় ও এমন দাগ পড়ে।
 
সমাধান: প্রতিদিন অন্তত ৫৫ গ্রাম প্রোটিন খান।

হলদেটে ভাব
কারণ: ভিটামিন ই এর অভাব।

সমাধান: বিভিন্ন বাদাম তেল যেমন- আমন্ড, হ্যাজেলনাট ও চীনাবাদাম খেতে পারেন। নখেও ম্যাসাজ কর‍া যেতে পারে।
 
ফাঙ্গাস
কারণ: অনেকদিন ধরে উষ্ণ স্যাঁতসেঁতে ও ভেজা পরিবেশে থাকলে পায়ের নখে মাইক্রোঅর্গানিজম বেড়ে ওঠে।
 
সমাধান: পানিতে আপেল সাইডার ভিনেগার দিয়ে ১৫ মিনিট পা ভিজিয়ে রাখুন। নখের ভাঙ্গাস পরিষ্কার হয়ে যাওয়ার আগ পর্যন্ত এভাবে রেখে দিন।

সাদা স্পট
কারণ: নখ আঘাতপ্রাপ্ত হলে বা জিংকের অভাবে এমন হয়।

সমাধান: পুষ্টিবিদদের মতে, প্রতিদিন অন্তত ৫০ মিলিগ্রাম জিংক গ্রহণ করা উচিত। লাল মাংস, তিলের বীজ, কুমড়ার বীজ ও ডাল জিঙ্কের ভালো উৎস।

যেসব অসুখের প্রভাবে নখের বিভিন্নতা দেখা যায়

ধনুকের মতো বাঁকানো নখ- থাইরয়েড ইনফেকশন।
ভঙ্গুর নখ- হাইপার- বা হাইপোথাইরয়েডিজম।
হলদেটে নখ- ব্রঙ্কাইটিস।
নখে নীলচেভাব- রক্ত কণিকায় অক্সিজেন প্রবাহে সমস্যা।
নখ সাদা হয়ে যাওয়া- লিভার ইনফেকশন।

বাংলাদেশ সময়: ২০২২ ঘণ্টা,  ০৭ নভেম্বর ২০১৫