ঢাকা শুক্রবার, ১৯ জানুয়ারি, ২০১৮, ৬ মাঘ ১৪২৪
Beta Version

মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করলেন ঢাবি শিক্ষক জোবায়ের আলম


গো নিউজ২৪ | স্টাফ করেসপন্ডেন্ট প্রকাশিত: জানুয়ারি ১৪, ২০১৮, ০২:৩৬ পিএম আপডেট: জানুয়ারি ১৪, ২০১৮, ০২:৩৮ পিএম
মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করলেন ঢাবি শিক্ষক জোবায়ের আলম

ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের উপ-নির্বাচনে মেয়র পদে প্রার্থী হতে আওয়ামী লীগের মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেছেন ঢাবি শিক্ষক ও ‘দি বাংলাদেশ টুডে’র প্রকাশক ও সম্পাদক জোবায়ের আলম। ধানমন্ডিতে আওয়ামী লীগ সভানেত্রীর রাজনৈতিক কার্যালয় থেকে তিনি মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেন।

এ সময় জোবায়ের আলম সাংবাদিকদের বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনায় আমাদের প্রয়াত মেয়র আনিসুল হক ঢাকার এই অবস্থার উন্নয়নে রোদ-বৃষ্টি উপেক্ষা করে ঢাকাকে আধুনিক শহরে রূপান্তরের জন্য মাঠেময়দানে কাজ করে গেছেন। তার উত্তরসূরি হিসেবে সমাজের সর্বস্তরের অংশীদারদের সাথে নিয়ে আমিও পরিবর্তনের এই ধারা অব্যাহত রাখতে চাই। জনগণের অকুন্ঠ সমর্থন ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর আশির্বাদপুষ্ট হলে মেয়র হিসেবে ঢাকাকে দক্ষিণ এশিয়ার একটি মডেল সিটি হিসেবে গড়ে তুলতে চাই।

তিনি আরও বলেন, ব্যক্তিগতভাবে আমি বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের বাংলাদেশে বিশ্বাস করি। বঙ্গবন্ধু স্বপ্ন দেখেছিলেন বলেই আমরা আজকের বাংলাদেশ পেয়েছি এবং যুগে যুগে আমার মতো বাঙালি তরুণদের অনুপ্রাণিত করে গেছেন আধুনিক বাংলাদেশের স্বপ্ন দেখার জন্য। পারিবারিক ভাবেই আমরা আওয়ামী লীগের রাজনীতির সমর্থক। আমার বাবা ছিলেন জেলা আওয়ামীলীগের সক্রিয় সদস্য। সেই মূল্যবোধ থেকেই আমি বিশ্ববিদ্যালয়ে থাকাকালীন অবস্থায় ছাত্রলীগের রাজনীতির সাথে যুক্ত হই।

মেয়র নির্বাচিত হলে তাঁর পরিকল্পনা জানতে চাইলে তিনি সাংবাদিকদের বলেন, প্রায় ২ কোটি জনসংখ্যার পৃথিবীর অন্যতম বৃহত্তম মেগাসিটি ঢাকা প্রায় বসবাসের অনুপযোগী। অসহনীয় যানজট, অব্যবস্থাপনা এবং মাত্রাতিরিক্ত মানুষের চাপে ঢাকার বর্তমান অবস্থা শোচনীয়। পোস্ট গ্রাজুয়েট ডিপ্লোমা করার সময় পড়াশোনার ফাঁকে ফাঁকে কানাডার ভ্যাঙ্কুভারের প্রশস্ত রাস্তা, বিস্তীর্ন সবুজ পার্কে ঘুরে বেড়াতাম শুধুমাত্র সৌন্দর্য অবলোকনের জন্য নয় বরং নগর ব্যবস্থাপনার দায়িত্বে থাকা ব্যক্তিদের পরিকল্পনা ও নির্মাণরীতি সুক্ষভাবে পর্যবেক্ষণ করার জন্য।

এ ব্যাপারে তিনি আরও বলেন, প্রায় ৩ বছর আমেরিকার সবচেয়ে বড় মেগাসিটি নিউ ইয়র্কে অবস্থানকালেও লক্ষ্য করেছি নগর কর্তৃপক্ষের যথাযথ ব্যবস্থাপনা কীভাবে নাগরিক জীবনযাত্রার মানকে সরাসরি প্রভাবিত করে।আমি মনে করি শুধু এক বা দুই সুপ্তাহ এর জন্য কোন শহরে বেড়াতে গেলে সেই শহরের ব্যাবস্থাপণা সম্পর্কে সঠিক ধারনা পাওয়া সম্ভব না । উচ্চশিক্ষার জন্য যেহেতু ভ্যানকুভার ও ম্যানহাটন সিটিতে দীর্ঘদিন আমাকে থাকতে হয়েছে সেহেতু স্বভাবতভাবে এই শহরগুলোর সু-ব্যাবস্থাপণা সম্পর্কে আমার সম্যক ধারণা রয়েছে। এই বাস্তব অভিজ্ঞতাগুলো ঢাকা শহরের উন্নয়নে কিছুটা হলেও ভুমিকা রাখবে ।

ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশন উপ-নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন ফরম বিক্রি হবে ১৩, ১৪ ও ১৫ জানুয়ারি। দলের দপ্তর সম্পাদক আব্দুস সোবহান গোলাপ স্বাক্ষরিত এ সংক্রান্ত এক বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, ১৫ জানুয়ারি (সোমবার) সন্ধ্যা ৭টার মধ্যে মনোনয়নের আবেদনপত্র জমা দেওয়ার শেষ সময়। পঁচিশ হাজার টাকা জমা দিয়ে এবার মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করতে হবে।

২৬ ফেব্রুয়ারি ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনে উপ-নির্বাচনে মেয়র পদে ভোটগ্রহণের তফসিল ঘোষণা করে ইসি। মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ সময় ১৮ জানুয়ারি। মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই করা হবে ২১ ও ২২ জানুয়ারি। প্রত্যাহারের শেষ সময় ২৯ জানুয়ারি।

এ দিকে, মেয়র পদে আওয়ামী লী‌গের প্রার্থী হতে আরও ম‌নোনয়পত্র সংগ্রহ ক‌রেন রাসেল আশেকী, আ‌বেদ মনসুর, আদম তমিজি হক এবং আতিকুল ইসলাম। এছাড়া তেজগাঁও ক‌লেজের অধ্যক্ষ শাহ আলম এবং মনিপুর স্কুল অ্যান্ড ক‌লেজের প্রি‌ন্সিপাল ফরহাদ হোসেনও মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেছেন।

জোবায়ের আলম কেন মেয়র হওয়ার স্বপ্ন দেখেন?

প্রায় ২ কোটি জনসংখ্যার পৃথিবীর অন্যতম বৃহত্তম মেগাসিটি ঢাকা প্রায় বসবাসের অনুপযোগী। অসহনীয় যানজট, অব্যবস্থাপনা এবং মাত্রাতিরিক্ত মানুষের চাপে ঢাকার বর্তমান অবস্থা শোচনীয়। পোস্ট গ্রাজুয়েট ডিপ্লোমা করার সময় পড়াশোনার ফাঁকে ফাঁকে তিনি কানাডার ভ্যাঙ্কুভারের প্রশস্ত রাস্তা, বিস্তীর্ন সবুজ পার্কে ঘুরে বেড়িয়েছেন। সেখানকার নগর ব্যবস্থাপনার দায়িত্বে থাকা ব্যক্তিদের পরিকল্পনা ও নির্মাণরীতি সূক্ষ্ণভাবে পর্যবেক্ষণ করার জন্য।

প্রায় ৩ বছর আমেরিকার সবচেয়ে বড় মেগাসিটি নিউ ইয়র্কে অবস্থানকালেও তিনি লক্ষ্য করেছেন নগর কর্তৃপক্ষের যথাযথ ব্যবস্থাপনা কীভাবে নাগরিক জীবনযাত্রার মানকে সরাসরি প্রভাবিত করে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনায় প্রয়াত মেয়র আনিসুল হক সাহেব ঢাকার এই অবস্থার উন্নয়নে রোদ বৃষ্টি উপেক্ষা করে ঢাকাকে আধুনিক শহরে রূপান্তরের জন্য মাঠেময়দানে কাজ করে গেছেন।

তার উত্তরসূরী হিসেবে সমাজের সর্বস্তরের অংশীদারদের সাথে নিয়ে তিনিও পরিবর্তনের এই ধারা অব্যাহত রাখতে চান। জনগণের অকুন্ঠ সমর্থন ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর আশির্বাদপুষ্ট হলে মেয়র হিসেবে ঢাকাকে দক্ষিণ এশিয়ার একটি মডেল সিটি হিসেবে গড়ে তুলতে চান জোবায়ের আলম।

পারিবারিক ভাবেই জোবায়ের আলম আওয়ামী লীগের সমর্থক। জোবায়ের আলমের বাবা ছিলেন থানা আওয়ামী লীগের সক্রিয় সদস্য। সেই মূল্যবোধ থেকেই বিশ্ববিদ্যালয়ে থাকাকালীন অবস্থায় ছাত্রলীগের রাজনীতির সাথে যুক্ত হন তিনি।
বর্তমানে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আওয়ামী লীগ সমর্থিত শিক্ষক সংগঠন নীলদলের একজন সক্রিয় সদস্য হিসেবে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ভিশন ২০২১ বাস্তবায়নের লক্ষ্যে দক্ষ জনবল তৈরির প্রয়াস থেকে প্রাচ্যের অক্সফোর্ডখ্যাত ঢাবিতে শিক্ষক হিসেবে প্রায় এক দশক যাবৎ সেবা দিয়ে যাচ্ছেন তিনি।

দেশের যেকোন প্রাকৃতিক দুর্যোগ ও সংকটাপন্ন মুহূর্তে দি বাংলাদেশ টুডের পক্ষ থেকে তিনি সবসময় অসহায় মানুষদের পাশে দাঁড়িয়েছেন। ২০১৭ সালের ভয়াবহ বন্যায় ১০০০ ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারকে ত্রাণ দিয়ে সাহায্য করেছেন তিনি।

রোহিঙ্গাদের সমস্যাকে বিবেচনায় নিয়ে সেপ্টেম্বর মাসজুড়ে মানবিক সাহায্যের ক্যাম্পেইন চালিয়েছেন যেনো এটি দেশীয় ও আন্তর্জাতিকভাবে একটি অগ্রগণ্য বিষয়ে পরিণত হয়। মেধাবী ও কৌতূহলী শিশুকিশোরদের বিজ্ঞান চর্চায় আগ্রহী করে তোলার লক্ষে আমরা জাতীয় বিজ্ঞান প্রতিযোগিতারও আয়োজন করেছেন।

ভবিষ্যতেও প্রান্তিক ও সুবিধাবঞ্চিত মানুষদের এবং উদ্যোগী তরুণদের ভাগ্য উন্নয়নে সর্বদা কাজ করতে বদ্ধপরিকর জোবায়ের আলম।
গোনিউজ২৪/কেআর

 

রাজনীতি বিভাগের আরো খবর
বুলেট এখনো হাসিনার আশপাশ দিয়ে ঘুরে : আইনমন্ত্রী

বুলেট এখনো হাসিনার আশপাশ দিয়ে ঘুরে : আইনমন্ত্রী

নির্বাচন বন্ধে সরকারের সঙ্গে ইসির যোগসাজশ রয়েছে

নির্বাচন বন্ধে সরকারের সঙ্গে ইসির যোগসাজশ রয়েছে

হাসিনার অনুমোদন ছাড়াই নেতা

হাসিনার অনুমোদন ছাড়াই নেতা

রাজনীতির মাঠে শেখ পরিবারের নতুন সদস্য

রাজনীতির মাঠে শেখ পরিবারের নতুন সদস্য

নির্বাচন কমিশন অযোগ্য এটা প্রমাণিত : ফখরুল

নির্বাচন কমিশন অযোগ্য এটা প্রমাণিত : ফখরুল

বিএনপির কার্যালয়ের সামনে ককটেল বিস্ফোরণ

বিএনপির কার্যালয়ের সামনে ককটেল বিস্ফোরণ

grameenphone