ঢাকা মঙ্গলবার, ২০ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮, ৮ ফাল্গুন ১৪২৪
Beta Version

মিললো না রায়ের কপি, এসপ্তাহে হবে কী জামিন!


গো নিউজ২৪ | নিজস্ব প্রতিবেদক: প্রকাশিত: ফেব্রুয়ারি ১৩, ২০১৮, ০৫:৪০ পিএম আপডেট: ফেব্রুয়ারি ১৩, ২০১৮, ০৫:৪২ পিএম
মিললো না রায়ের কপি, এসপ্তাহে হবে কী জামিন!

ঢাকা : জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় সাজাপ্রাপ্ত বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার রায়ের কপি এখনো মেলেনি। ৬৩২ পৃষ্ঠা রায়ের সার্টিফায়েড কপি না পাওয়ায় উচ্চ আদালতে জামিনের আবেদন করা সম্ভব হয়নি মঙ্গলবার।  কবে নাগাদ রায়ের কপি পাওয়া যাবে সেটাও নিশ্চিত নন বিএনপির আইনজীবীরা। বুধবারও কপি না পেলে পরের সপ্তাহ ছাড়া জামিন আবেদনের সম্ভাবনা নেই।

এর আগে সোমবার ৬৩২ পৃষ্ঠার রায়ের কপি পাওয়ার জন্য তিন হাজার পৃষ্ঠার কার্টিজ পেপার আদালতে জমা দিয়েছেন খালেদার আইনজীবীরা। এই কার্টিজ পেপারে রায়ের সার্টিফায়েড কপি লেখা হবে।

রায়ের কপি না পাওয়ার বিষয়ে খালেদা জিয়ার আইনজীবী সানাউল্লাহ মিয়া বলেন, রায়ের কপি আগামীকাল (বুধবার) পেলে পরদিন আপিল ফাইল করা হবে। 

তিনি বলেন, আজকে আমরা কয়েকটি ওকালতনামা জেল সুপারের মাধ্যমে ম্যাডামের কাছে দিয়ে এসেছি। তিনি দেখে-শুনে পরে সই করে দেবেন। দুর্নীতি দমন কমিশন-দুদকের মামলাসহ অন্যান্য মামলায় ম্যাডাম জামিনে আছেন।

রায়ের কপি প্রসঙ্গে তিনি বলেন, আগামীকাল (বুধবার) আমরা দুপুরের পর রায়ের কপি পাব বলে আশা করছি। এটা ঢাকা বিশেষ জজ-৫ আমাদের সরবরাহ করবেন। আমাদের বকশীবাজারের আলিয়া মাদ্রাসায় আসতে হবে না। কাল যদি আমরা রায়ের কপি পাই, তাহলে পরদিন হয়তো আপিল ফাইল করতে পারব।

উল্লেখ্য,  জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার ৫বছরের কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত।

এ মামলায় বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের ১০ বছর কারাদণ্ড প্রদান করা হয়েছে।

গত বৃহস্পতিবার (৮ ফেব্রুয়ারি) বেলা আড়াইটার দিকে এ রায় ঘোষণা করেন মামলার বিচারক ঢাকার পঞ্চম বিশেষ জজ মো. আখতারুজ্জামান।

মামলার অন্যান্য ৫ আসামীকেও ১০ বছরের কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। 

সাজা প্রাপ্ত অন্য আসামীরা হলেন- সাবেক সাংসদ ও ব্যবসায়ী কাজী সালিমুল হক কামাল, সাবেক মুখ্যসচিব কামাল উদ্দিন সিদ্দিকী, ব্যবসায়ী শরফুদ্দিন আহমেদ ও জিয়াউর রহমানের বোনের ছেলে মমিনুর রহমান। মামলায় শুরু থেকে পলাতক আছেন তারেক রহমান, কামাল উদ্দিন সিদ্দিকী ও মমিনুর রহমান।

রায়ে সাজাপ্রাপ্ত প্রত্যেকের ২কোটি ১০লক্ষ ৭১ হাজার টাকা সমপরিমান জরিমানাও ধার্য করা হয়েছে।

 

গো নিউজ২৪/আই

জাতীয় বিভাগের আরো খবর
আগে কারাদণ্ডের বিরুদ্ধে আপিল পরে জামিন আবেদন

আগে কারাদণ্ডের বিরুদ্ধে আপিল পরে জামিন আবেদন

স্বাধীনতার অর্জন যেন কোনোভাবেই নস্যাৎ না হয়

স্বাধীনতার অর্জন যেন কোনোভাবেই নস্যাৎ না হয়

২১ গুণীজনকে একুশে পদক তুলে দিলেন প্রধানমন্ত্রী

২১ গুণীজনকে একুশে পদক তুলে দিলেন প্রধানমন্ত্রী

যে বেঞ্চে হতে পারে খালেদার আপিলের শুনানি

যে বেঞ্চে হতে পারে খালেদার আপিলের শুনানি

চলছে খালেদার আপিলের প্রস্তুতি: মোকাবেলায় প্রস্তুত দুদক

চলছে খালেদার আপিলের প্রস্তুতি: মোকাবেলায় প্রস্তুত দুদক

যেভাবে চলে যায় তারেকের হাতে এতিমের টাকা

যেভাবে চলে যায় তারেকের হাতে এতিমের টাকা

Hitachi Festival