৮ অগ্রাহায়ণ ১৪২৪, বুধবার ২২ নভেম্বর ২০১৭ , ১০:৩৫ অপরাহ্ণ

সৌদিতে যৌনকর্মী ছিলাম, ও আমাকে আইএসের কাছে বিক্রি করে দিত


গো নিউজ২৪ | আন্তর্জাতিক ডেস্ক আপডেট: ১১ নভেম্বর ২০১৭ শনিবার
সৌদিতে যৌনকর্মী ছিলাম, ও আমাকে আইএসের কাছে বিক্রি করে দিত

সম্প্রতি ভারতের কেরালা হাইকোর্টে একটি অভিযোগ জমা দিয়েছেন বছর পঁচিশের এক নারী। তিনি অভিযোগ জানিয়েছেন, তার বিয়ে হয়েছিল, কিন্তু তার স্বামী তাকে সৌদি আরবে নিয়ে যায়। সেখানে তাকে দিয়ে যৌনকর্মীর কাজ করানো হয়। একপ্রকার যৌনদাসী ছিলেন তিনি। এখানেই শেষ নয়। তাকে আই এসের কাছে বিক্রি করে দেওয়ার চেষ্টা করা হয়েছিল।

আদালতের কাছে তিনি অভিযোগ জানিয়েছেন, তাকে যৌন নির্যাতন করা হত। জোর করে যৌন সম্পর্কে যাওয়ার জন্য বাধ্য করা হত। সেগুলোর ভিডিও নেওয়া হত আর পরে সেই ভিডিও দেখিয়ে তাকে ব্ল্যাকমেল করা হত বলেও জানান তিনি।

আবেদনপত্রে তিনি লিখেছেন, সৌদি আরবে পৌঁছনোর পর তার স্বামী আসল রং দেখান। সে নির্যাতিতার সঙ্গে যৌনদাসীর মতো ব্যবহার করত। শুধু তাই নয়। তার সিরিয়া যাওয়ারও পরিকল্পনা ছিল। কয়েকদিনের মধ্যেই সিরিয়ায় চলে যেতে হত নির্যাতিতাকে।

আইএসআইএস সন্ত্রাসবাদীদের কাছে তাকে বিক্রি করে দেওয়ার পরিকল্পনা করেছিল তার স্বামী। অক্টোবরের প্রথম সপ্তাহে তাকে সিরিয়া নিয়ে যাওয়ার কথা ছিল। ৩ অক্টোবর তিনি ইন্টারনেটের মাধ্যমে বাড়ির সঙ্গে যোগাযোগ করেন।

তাকে উদ্ধারের আবেদন জানান। ৪ অক্টোবর বাবার সাহায্য নিয়ে তিনি পালিয়ে যেতে সক্ষম হন। এরপর বাবার কেটে দেওয়া টিকিটের সাহায্য দেশে ফিরে আসেন তিনি। ৫ অক্টোবর তিনি আহমেদাবাদ পৌঁছন।

ওই নারীর জন্ম ও বেড়ে ওঠা গুজরাতে। সেখানেই এক ব্যক্তির সঙ্গে দেখা হয় তার। ওই ব্যক্তি জোর করে তাকে বিয়ে করতে বাধ্য করেন বলে অভিযোগ।আপতত কেরালা হাইকোর্ট নির্যাতিতাকে তার বাবার দায়িত্বে ছেড়ে দিয়েছে। তার বাবা আদালতে মেয়ের বিয়ে নিয়ে চ্যালেঞ্জ জানিয়েছেন।

গো নিউজ২৪/এবি