২ কার্তিক ১৪২৪, মঙ্গলবার ১৭ অক্টোবর ২০১৭ , ৯:১৮ অপরাহ্ণ

মিশা-রিয়াজের মতো এবার জায়েদ,বদিও নিষিদ্ধ


গো নিউজ২৪ | বিনোদন প্রতিবেদক আপডেট: ০৯ আগস্ট ২০১৭ বুধবার
মিশা-রিয়াজের মতো এবার জায়েদ,বদিও নিষিদ্ধ

ঢাকা: বাংলা চলচ্চিত্রে চলমান সংকট যেনো কাটছেই না। বরং গোটা চলচ্চিত্র ইন্ডাস্ট্রি দিনকে দিন আরো অস্থিতিশীল হয়ে ওঠছে। পাল্টাপাল্টি বয়কট, নিষিদ্ধ হওয়ার যে নোংরামি শুরু হয়েছে তা আরো মাথা চাড়া দিয়ে ওঠেছে। ‘চলচ্চিত্র প্রদর্শক সমিতি’র সভাপতির ওপর হামলার বিষয়টি সুরাহা না হওয়ায় এবার নতুন করে দেশের প্রেক্ষাগৃহে নিষিদ্ধ হলো জায়েদ খান, বদিউল আলম খোকন ও মুশফিকুর রহমান গুলজারের চলচ্চিত্র।

ঈদের আগে যৌথ প্রযোজনার ছবি ‘নবাব’ ও ‘বস-২’ মুক্তি যাতে সেন্সর না পায়, সে লক্ষ্যে সেন্সর বোর্ডের সামনে প্রতিবাদ সভা করে চলচ্চিত্র পরিবার নামের ১৬ সংগঠনের নেতা কর্মীরা। সেখানে চলচ্চিত্র প্রদর্শক সমিতির সভাপতি ইফতেখার জামিল নওশাদের ওপর চলচ্চিত্র পরিবারের নেতাদের সামনেই হামলা করে তাদের কর্মী বাহিনী। এরপর এমন ন্যাক্কারজনক ঘটনার জন্য চলচ্চিত্র প্রদর্শক সমিতি প্রাথমিকভাবে শিল্পী সমিতির সভাপতি মিশা সওদাগর, সহ-সভাপতি রিয়াজ এবং প্রযোজক খসরুর ছবি দেশের সিনেমা হলগুলোতে প্রদর্শন না করার সিদ্ধান্ত নেন। 

তারপরও প্রদর্শক সমিতির সভাপতির ওপর হামলার ব্যাপারটি নিয়ে চলচ্চিত্র পরিবারের পক্ষ থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে এখনো কোনো সিদ্ধান্ত না জানানোয় এবার মিশা-রিয়াজদের মতোই বাংলার প্রেক্ষাগৃহে শিল্পী সমিতির সাধারণ সম্পাদক জায়েদ খান, পরিচালক সমিতির সভাপতি মুশফিকুর রহমান গুলজার এবং পরিচালক সমিতির মহাসচিব বদিউল আলম খোকনের সিনেমাগুলো না চালানোর সিদ্ধান্ত নেন।

৮ আগস্ট মঙ্গলবার সন্ধ্যায় বাংলাদেশ চলচ্চিত্র প্রদর্শক সমিতি রাজধানীর ঢাকা ক্লাবে আয়োজিত বার্ষিক সাধারণ সভায় এ ঘোষণা দেয়। প্রদর্শক সমিতির সভাপতি ইফতেখার উদ্দিন নওশাদ হামলার বিচার না হওয়ায় এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। শুধু তাই না, যদি এই হামলার কোনো বিচার না হয় তাহলে সেপ্টেম্বরের শেষ সপ্তাহে সারাদেশের সিনেমা হল বন্ধ করে দেওয়া হবে বলেও হুমকি দেন চলচ্চিত্র প্রদর্শক সমিতির নেতারা।

চলচ্চিত্র প্রদর্শক সমিতির এই বার্ষিক সাধারণ সভায় ইফতেখার আহমেদ নওশাদ ছাড়াও উপস্থিত ছিলেন জাজ মাল্টিমিডিয়ার কর্ণধার আব্দুল আজিজ।
গো নিউজ/এমটিএল