১ পৌষ ১৪২৪, শনিবার ১৬ ডিসেম্বর ২০১৭ , ৯:৩০ পূর্বাহ্ণ

মার্কিন ভূখণ্ডে এ মাসেই হামলা চালাবে উ. কোরিয়া


গো নিউজ২৪ | আন্তর্জাতিক ডেস্ক আপডেট: ১০ আগস্ট ২০১৭ বৃহস্পতিবার
মার্কিন ভূখণ্ডে এ মাসেই হামলা চালাবে উ. কোরিয়া

ঢাকা: একদিন আগেই বলেছিল প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলে মার্কিন ভূখণ্ড গুয়ামে হামলার প্রস্তুতি নিচ্ছে উত্তর কোরিয়া। তবে আজ (১০ আগস্ট) উত্তর কোরিয়া আবারো বলেছে, চলতি মাসের মাঝামাঝিতেই তারা মার্কিন ভূখণ্ড গুয়ামে হামলা চালাতে প্রস্তুত।

বিবিসি অনলাইনে আজ বৃহস্পতিবার (১০ আগস্ট) এ খবর প্রকাশ করা হয়েছে। উত্তর কোরিয়ার সরকারি বার্তা সংস্থার বরাত দিয়ে বিবিসি জানাচ্ছে, কিম জং-উন হামলার পরিকল্পনা পাস করলে হুয়াসং-১২ রকেট জাপানের ওপর দিয়ে গুয়াম থেকে ৩০ কিলোমিটার (১৭ মাইল) দূরে সাগরে গিয়ে পড়বে। 

উত্তর কোরিয়া আরো বলছে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চল গুয়ামের কাছাকাছি এলাকায় তারা চারটি ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালাতে প্রস্তুত।

এর আগে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেছিলেন যুক্তরাষ্ট্রকে আবারো পারমাণবিক হামলার হুমকি দিলে, সমুচিত জবাব দেয়া হবে। ট্রাম্পের ওই হুমকির পরেই বুধবার (৯ আগস্ট) উত্তর কোরিয়া পাল্টায় জবাব দেয়। তারা জানায়, কৌশলগতভাবে যুক্তরাষ্ট্রের জন্য গুরুত্বপূর্ণ একটি স্থাপনা হিসেবে পরিচিত গুয়ামে মাঝারি থেকে দূর পাল্লার রকেট নিক্ষেপ করার পরিকল্পনা করছে উত্তর কোরিয়া। 

উত্তর কোরিয়ার এ ঘোষণার পর দুদেশের মধ্যে নতুন করে উত্তেজনা দেখা দেয়। সেই সঙ্গে গণমাধ্যমেও তা ফলাও করে প্রচারও পায়। যদিও গেল কয়েক মাস ধরেই উত্তর কোরিয়া আর মার্কিন যুক্তরাষ্টের মধ্যে এমন হুমকি পাল্টা হুমকির ঘটনা ঘটে আসছে।

উত্তর কোরিয়ার বিরামহীন হুমকির পাল্টা জবাব দিয়ে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র বলে আসছে, উত্তর কোরিয়ার এমন যেকোনো পদক্ষেপ হবে তাদের নিজেদের 'শাসনক্ষমতা শেষ হতে দেখা'।

মিসাইল

যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিরক্ষামন্ত্রী জিম ম্যাটিস বলেছেন, যুক্তরাষ্ট্র ও তার মিত্রদের বিরুদ্ধে পিয়ংইয়ং যদি কোনো যুদ্ধে অবতীর্ণ হয় তাহলে দেশটির ওপর 'সর্বশক্তি প্রয়োগ করা হবে'।

গুয়াম থেকে বিবিসির সংবাদদাতা রুপার্ট উইংফিল্ড হায়েস জানিয়েছেন, উত্তর কোরিয়ার এমন হুঁশিয়ারিকে 'বাগাড়ম্বরপূর্ণ' মনে করছেন অনেকে। কারণ সেখানকার অনেক মানুষ মনে করেন যদি সত্যিই এমন ধরনের হামলা করে উত্তর কোরিয়া তাহলে সেটি হবে আত্মঘাতী একটি কাজ।

গোনিউজ/এন