১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৪, শুক্রবার ২৬ মে ২০১৭ , ১১:৪১ পূর্বাহ্ণ

নাশকতা নয়, ভাস্কর্য উল্টে শিক্ষার্থীদের প্রতিবাদ


গো নিউজ২৪ আপডেট: ১৮ এপ্রিল ২০১৭ মঙ্গলবার
নাশকতা নয়, ভাস্কর্য উল্টে শিক্ষার্থীদের প্রতিবাদ

কোনো নাশকতার ঘটনা নয়, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের চারুকলা বিভাগের কিছু শিক্ষার্থী বিভাগের উন্নয়নের দাবিতে ভাস্কর্য উল্টে রেখে প্রতিবাদ জানিয়েছেন। সোমবার দিবাগত রাতে তারা এই ঘটনা ঘটান। নিজেদের তৈরি করা কিছু মূর্তি উল্টে রেখে তারা বিভাগের বিভিন্ন বিষয়ে উন্নতির দাবি জানান। মঙ্গলবার সকালে বিশ্ববিদ্যালয় খোলা হলে বিষয়টি সবার নজরে আসে।

এদিকে রাতের আঁধারে ভাস্কর্য উল্টে রাখা নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থীসহ সারাদেশে তোলপাড় দেখা দিয়েছে। সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, চারুকলা অনুষদ চত্বরে মৃৎশিল্প ও ভাস্কর্যের শিক্ষার্থীদের দীর্ঘদিনের গড়া কয়েকশ’ ভাস্কর্য উল্টে রাখা হয়েছে।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে চারুকলা অনুষদের অধিকর্তা অধ্যাপক মো. মোস্তাফিজুর রহমান জানান, এসব ভাস্কর্য বহিরাগত দুর্বৃত্তরা উপড়ে ফেলেনি। মৃৎশিল্প ও ভাস্কর্য বিভাগের শিক্ষার্থীরাই উল্টে ছড়িয়ে ছিটিয়ে রেখেছে।

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের চারুকলা অনুষদের মৃৎশিল্প ও ভাস্কর্য বিভাগের সভাপতি প্রফেসর ড. মোস্তফা শরীফ আনোয়ার বলেন, এসব মূর্তি ভেঙে ফেলা  হয়নি, বরং কিছু মূর্তি দাঁড়ানো ছিলো সেগুলো শোয়ানো হয়েছে।  বিভাগের কিছু বিকৃত মস্তিস্কের শিক্ষার্থী এমন ঘটনা ঘটিয়েছে। তাদের মূল দাবি দাওয়া বিভাগের উন্নতি।

বিভাগের উন্নতি চাইলেও এভাবে তার প্রতিবাদ হতে পারে না বলে মনে করেন এই শিক্ষক। তিনি বলেন, কয়েকদিন আগেই পহেলা বৈশাখে গেলো। তাই পুরো এলাকা অপরিস্কার হয়ে রয়েছে। তারা রাতেও দীর্ঘসময় ক্যাম্পাসে থাকতে চায় এবং আরো ভালো কাজ করার  সুযোগ চায়। সেজন্য এভাবে প্রতিবাদ জানিয়েছে। যারা এটা করেছে তারা বিভাগের উন্নতি চায় তা ঠিক, তারা কাজও প্রচুর করে কিন্তু এভাবে তারা বিভাগের শিক্ষা কার্যক্রমের পরিবেশ নষ্ট করেছে।

এমন ঘটনায় জরুরি সভা করেছে চারুকলা বিভাগ।

গো নিউজ২৪/এএইচ